মুসতাকিম মামুন

একজন স্কাউটের পরিপূর্ণ ইউনিফর্মের অন্যতম অংশ স্কার্ফ। স্কাউট আন্দোলনে জড়িত পুরাতন ও নতুন সকলেই “স্কাউটিং চেতনা” কে তাদের মাঝে নতুন করে জাগ্রত করবে; স্কাউট আন্দোলনের জনক লর্ড ব্যাডেন পাওয়েলেরর সেই কথার সাথে- একদা স্কাউট, সর্বদাই স্কাউট”- এই অনুপ্রেরণায় প্রতিবছর ১ আগস্ট বিশ্বব্যাপী পালিত হয় “স্কাউট স্কার্ফ দিবস”। মূলত “ব্রাউন্সি দ্বীপ”-এ স্কাউট আন্দোলনের জনক লর্ড ব্যাডেন পাওয়েল কর্তৃক ১ আগস্ট ১৯০৭ সালে আয়োজিত পৃথিবীর প্রথম স্কাউট ক্যাম্পকে স্মরণীয় করে রাখার জন্যেই সারা বিশ্বব্যাপী এই দিনটি পালিত হয়।

স্কার্ফ শুধুমাত্র একটি প্রতীক হলেও, দিনটি সকল স্কাউটদের কাছে স্কাউট প্রতিজ্ঞাকে সমুন্নত রাখার ও স্কাউটিং এর মিশন- “পৃথিবীকে যেমন পেয়েছি তার থেকে সুন্দর রেখে যাবার” কথাকে স্মরণ করিয়ে দেয়ার একটি সুদৃঢ় প্রতীক। দিনটি উপলক্ষে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের স্কাউটরা নানারকম সেবামূলক ও সচেতনতামূলক কর্মসূচি পালন করেন। এরই ধারাবাহিকতায় শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় রোভার স্কাউট গ্রুপ কর্তৃক বিশ্ব স্কাউট স্কার্ফ ডে উপলক্ষে ডেঙ্গু প্রতিরোধে জনসচেতনতা সৃষ্টি মূলক কর্মসূচী পালন করা হয়।

এই কর্মসূচীতে উপস্থিত ছিলেন রোভার স্কাউট লিডার ড.মো.আক্কাচ আলী আকাশ,শিমুল চন্দ্র সরকার,সিনিয়র রোভারমেট তানজির আহমেদ,সালমা বিনতে সালাম ইতি,সানজিদা রহমান তন্নি সহ বিভিন্ন স্তরের রোভার।এই সময়ে ডেঙ্গু সচেতনতামূলক বিভিন্ন লিফলেট বিতরণ করা হয় ও বাসায় বাসায় গিয়ে ডেঙ্গু হলে করণীয় বিষয় সম্পর্কে সবাইকে অবগত করা হয়। বিশ্ববিদ্যালয় আবাসিক কলোনী, বিভিন্ন হল সমূহে, বটতলা বস্তিতে এই কার্যক্রম চালানো হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here