রাসয়াত রহমান জিকো লেখালেখির পাশাপাশি একজন ব্যাংক কর্মকর্তা। বইমেলায় প্রকাশিত হচ্ছে তার অষ্টম বই ওয়ান ডাউন। আদী প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত হচ্ছে বইটি। বইটিট প্রচ্ছদ করেছে রাশীম শাহাব তীর্থ। বেকায়দা, কলম, রাফখাতা এই বইগুলো তারই লেখা। নতুন বই ওয়ান ডাউন নিয়ে কথোপকথন হয় তার সাথে……..

সীমান্ত: ওয়ান ডাউন বইটির নাম দেখেই মনে হচ্ছে ক্রিকেট সম্পর্কিত কিছু একটা, আসলে কি?
রাসয়াত রহমান জিকো: গল্পটা ক্রিকেট নিয়েই। বাংলাদেশের ক্রিকেটের ইতিহাসের সাথে বেড়ে ওঠা একজন ক্রিকেটারের গল্প। ক্রিকেটার হতে চেয়েছিলেন সাংবাদিক ফয়েজ, পায়ের ইনজুরীতে খোঁড়া হয়ে যাওয়ায় চিরতরে স্বপ্ন বিসর্জন দিতে হয় কিশোর বয়সেই ৷ সেই সময়টাতেই পাড়ায় তার সমবয়সী যারা ক্রিকেট খেকে তাদের সাথে খেলার সুযোগের আশায় ঘুরতে থাকা ছোট্ট রাহাতের মাঝে সম্ভাবনা আর স্বপ্ন দেখেছিলো ফয়েজ। ব্যাট কেনার সামর্থ্য না থাকা ছেলেটাকে গাছের ডাল দিয়ে শ্যাডো করতে দেখে অসাধারণ ভঙ্গিতে, লেগ স্পিনের চেষ্টা করতে দেখে। পাড়ার ক্রিকেটে তবু দুই দলের হয়েই ফিল্ডিং করে ছোট্ট রাহাত। নিজের স্বপ্ন রাহাতকে দিয়ে দেখতে শুরু করে ফয়েজ। কিন্তু স্বপ্নযাত্রা এত সহজ নয়। জীবনের সংকটে প্রায়ই সে মুখ থুবড়ে পড়ে। তারপরেও ফয়েজের মতো, রাহাতের মতো স্বপ্নবাজরা বেঁচে থাকতে চায়। একদিন রাহাতদের উপর ভর করে ক্রিকেট বিশ্বে মাথা তুলে দাড়ানোর সংগ্রাম শুরু হয় বাংলাদেশের। পারবে কি ফয়েজ রাহাতকে দিয়ে তার স্বপ্ন পূরণ করতে?

সীমান্ত: বইটির নাম ওয়ান ডাউন কেন দিলেন?
রাসয়াত রহমান জিকো: এটা ব্যাটিং পজিশন। গল্পের মূল চরিত্র এই পজিশনেই প্রথম সুযোগ পায়।

সীমান্ত: ওয়ান ডাউন বইটি আপনার কততম বই এবং এর আগে আপনার কি কি বই প্রকাশিত হয়েছে?
রাসয়াত রহমান জিকো: ওয়ান ডাউন আমার ৮ম বই। এর আগের বইগুলো যথাক্রমে বেকায়দা (রম্য), কলম (গল্প সমগ্র), পিকু (শিশুতোষ), রাফখাতা (উপন্যাস), যে প্রহরে নেই আমি (উপন্যাস), খলিল ও ভূতকন্যা চম্পাবতী (রম্য উপন্যাস), ইমোশনাল সুপারহিরো (উপন্যাস)।

সীমান্ত: বইটি নিয়ে আপনার প্রত্যাশা কিরূপ?
রাসয়াত রহমান জিকো: যারা পড়বেন তারা যেন আনন্দ পান এতটুকুই প্রত্যাশা।

সীমান্ত: লেখালেখিতে আসার শুরুর গল্পটা শুনতে চাই?
রাসয়াত রহমান জিকো: জীবনের চিত্রনাট্য সৃষ্টিকর্তা লিখেন। জীবনকে লেখক কিভাবে দেখতে চান তা লেখক লিখেন। এই চিন্তা থেকেই সব শুরু। বিভিন্ন লেখকদের বই পড়তে পড়তে এক সময় মনে হয়েছিল আমারও বলার মত অনেক গল্প আছে।

সাক্ষাতকার নিয়েছে : গোলাম মোর্শেদ সীমান্ত

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here